বাচ্চার নখ কামড়ানো প্রতিরোধে করণীয়

0
528

আপনি কি আপনার বাচ্চাকে প্রায়ই নখ কামড়াতে দেখেন? এটি বাচ্চাদের একটি সাধারণ অভ্যাস যা থেকে মুক্ত করা বেশ কঠিনই। চিকিৎসা বিজ্ঞানে নখ কামড়ানোকে অনিকোফ্যাজিয়া বলা হয়। বাচ্চাকে নখ কামড়ানো থেকে বিরত রাখতে বেশ কিছু কাজ করা যেতে পারে। চলুন জানা যাক কিছু উপায়গুলো –
প্রধান কারণ খুঁজে বের করা: আপনার বাচ্চা কেন নখ কামড়ায় তা বের করা হবে আপনার প্রধান কাজ। এজন্য বাচ্চার স্কুল শিক্ষকদের সাথেও কথা বলে রাখা যেতে পারে যাতে তারাও বিষয়টি লক্ষ্য রাখেন।

কাজে ব্যস্ত রাখা: একঘেয়েমি নখ কামড়ানোর একটি বড় কারণ। নখ কামড়াতে দেখলে চিৎকার বা ধমক দিবেন না। শুধু তাকে দুই হাত ব্যবহৃত হয় এবং বাচ্চা পছন্দ করে এমন খেলা কিংবা কাজে লাগান।

খোলাখুলি কথা বলুন: যদি আপনার বাচ্চার বয়স পাঁচ বছরের মত হয় তবে নখ কামড়ানোর বিষয়ে বুঝিয়ে বলুন। তাকে জানান নখ কামড়ারোর স্বাস্থ্যগত ঝুঁকি। তাকে জানান এর ফলে আঙ্গুল কেটে রক্ত বের হতে পারে ও দাঁতের ক্ষতি হতে পারে।

সাইকোলজিক্যাল বা মনস্তাত্বিক সহায়তা প্রদান: অনেক সময় ভয় কিংবা দুশ্চিন্তার কারণে এই অভ্যাসের জন্ম হতে পারে। কারণ সনাক্তকরণের পর তা দূর করতে হবে। প্রয়োজনে সাইকোলজিস্টদের স্মরণাপন্ন হবেন।

পুরস্কার প্রদান: তাকে বলেন যে নখ কামড়ানো ত্যাগ করলে পুরস্কার দিবেন। এটা নখ কামড়ানো থেকে বিরত রাখার সবচেয়ে ভাল উপায়। নখ কামড়ানো ছাড়লে বা ছাড়ার চেষ্টা করলে তার পছন্দসই পুরস্কার দিন।

আঙ্গুলের স্বাদ তিক্ত করা: বাচ্চা যখন ঘুমিয়ে যায় তখন আঙ্গুলে তিত করল্লা থেতলে রস লাগাতে পারেন। তিক্ত স্বাদের জন্য বাচ্চা আর নখ কামড়াবে না। আমাদের দেশের মায়েরা সাধারণত বাচ্চাদর বুকের দুধ ছাড়াতে এই কাজটি করে থাকেন।

চিৎকার ও গালমন্দ না করা: যদি আপনার কোন পদ্ধতি সঠিকভাবে কাজ না করে তবে বাচ্চাকে গালমন্দ ও চিৎকার করে বিরক্ত করবেন না। পিতৃ-মাতৃসূলভ আচরণ অব্যাহত রাখুন।