৯৯৯ এ ফোন করে ৩০০ যাত্রীর প্রাণ বাঁচালেন যুবক

0
41

জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ এ ফোন করে ডুবন্ত ফেরীর ৩০০ যাত্রীর প্রাণ বাঁচালেন সোহাগ নামে এক যু্বক। গতকাল মঙ্গলবার ১০টা ৫ মিনিটে ফোন করে সোহাগ পুলিশকে জানান, তিনি রানীক্ষেত নামে একটি ফেরির যাত্রী। মাওয়া থেকে কাঠালবাড়ি যাওয়ার পথে পদ্মা নদীতে তাদের ফেরি দুর্ঘটনা কবলিত হয়ে ডুবে যাচ্ছে।







কর্তব্যরত পুলিশ সদস্য ফোন কলটি রিসিভ করে অবিলম্বে কোস্টগার্ড, নৌ-পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসকে বিষয়টি জানান। কোস্টগার্ডসহ সংশ্লিষ্ট সকলে দ্রুত পদক্ষেপ নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ফেরি থেকে প্রায় ৩০০ জন যাত্রী উদ্ধার করে।

শ্রীনগর, মুন্সীগঞ্জ ফায়ার স্টেশনের একটি দল ট্রলার ও পাম্প মেশিন সাথে নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে প্রায় ডুবে যাওয়া ফেরি থেকে পানি নিষ্কাশন শুরু করে। ফেরির মধ্যে তখনও ৯টি ট্রাক ও ৬টি বাস ছিল।

শেষ পর্যন্ত ফেরিটি কোন হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতি ছাড়াই কাঁঠালবাড়ি ঘাটে নিরাপদে পৌঁছেছে। সূত্র: বাংলাদেশ পুলিশ

আরোও পড়ুন-

একই দিনে দুই নারীকে বিয়ে, কারন জানলে অবাক না হয়ে পারবেন না (ভিডিও)







একই দিনে দুই নারীকে বিয়ে করে আলোচনার সৃষ্টি করেছেন সোমালিয় যুবক বশির মোহামেদ। শনিবার সোমালিয়ান্দের সিনাই গ্রামে বিয়ে করেন বিয়ে করে মোহামেদ। তার দুই স্ত্রীর নাম ইকরা ও নিমো।

বশির মোহামেদ জানান, তিনি আট মাস ধরে চেষ্টা চালিয়েছেন উভয়ই নারীর মন জয় করতে। অবশেষে দুইজনকেই একসাথে বিয়ে করতে রাজি করতে সক্ষম হন। অন্য পুরুষদের উৎসাহিত করতে আমি এমনটা করেছি। দুইজনকে একসাথে আমি আমার বাড়িতে নিয়ে আসি। আমি তাদের দুইজনকে খোলাখুলি জানাই যে আমি তাদের দুজনকেই ভালোবাসি। তারা উভয়েই সন্তুষ্ট।







একসাথে দুইজনকেই বিয়ে করার কারণ হিসেবে বাশির বলেন, প্রথম থেকেই যাতে তারা একে অপরকে মেনে নিতে পারেন এবং পরষ্পরের প্রতি ঈর্ষান্বিত না হন। অনেক সন্তানের পিতা হতেই আমি দুইজনকে বিয়ে করেছি।

সোমালিয় সমাজে বহুবিবাহ প্রচলিত থাকলেই একসাথে দুই নারীকে বিয়ে করার ঘটনা নতুন।